আসুন জেনে নেই কার্যকরী কয়েকটি মাথা ব্যাথার ঘরোয়া চিকিৎসা

আসুন জেনে নেই কার্যকরী কয়েকটি মাথা ব্যাথার ঘরোয়া চিকিৎসা

অতিরিক্ত গরমে মাথাব্যথা হয়না এমন মানুষ খুঁজে পাওয়া যাবে না। আর একবার মাথাব্যথা হলে তা যেন সহজে ছাড়ে না। এমন পরিস্থিতিতে মনোযোগ দিয়ে কোনো কাজ করা সম্ভব নয়। কখনো কখনো মাথাব্যথা থেকে মুক্তি পেতে ওষুধ খেতে হয়।

জীবনে কখনো মাথা ব্যথা করেনি এমন কাউকে খুঁজে পাওয়া কঠিন হতে পারে। বিভিন্ন কারণে মাথাব্যথা হয়। এর মধ্যে রয়েছে দুশ্চিন্তা, মাইগ্রেন, অতিরিক্ত ধূমপান, ব্যথানাশক ওষুধের অতিরিক্ত ব্যবহার, পানিশূন্যতা ইত্যাদি।

কাজের চাপে বিশ্রাম না নেওয়ার কারণে প্রায়ই মাথাব্যথা হয়। তবে মাথা ধরে রাখলে ঘুমাতেই হবে। আর মাথাব্যথা যদি দিন দিন বাড়তে থাকে তাহলে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে।

তবে মাথাব্যথা হলে চিকিৎসকের পরামর্শ ছাড়া ব্যথানাশক ওষুধ খাওয়া ঠিক নয়। এসব ওষুধের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া আছে। তবে ঘরোয়া উপায়ে মাথাব্যথা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। চলুন জেনে নেওয়া যাক ঘরে বসে কীভাবে মাথাব্যথা থেকে মুক্তি পাবেন।

  • আঙুলের ডগা দিয়ে শিরা ও ঘাড়ের উভয় পাশে কিছুক্ষণ ম্যাসাজ করলে আরাম পাবেন এবং ক্লান্তি চলে যাবে। ক্লান্তির কারণে মাথা চেপে ধরলে এই ম্যাসাজটি খুবই উপকারী।
  • অতিরিক্ত আলোর কারণে প্রায়ই মাথাব্যথা হয়। তাই মাথাব্যথা হলে ঘরের আলো কমিয়ে দিন।
  • কম্পিউটার স্ক্রিন, ল্যাপটপ বা মোবাইল ফোন থেকে দূরে থাকুন। আপনি যদি বাইরে থাকেন তবে ভালো মানের সানগ্লাস ব্যবহার করুন।
  • আঙুলের ডগায় এসেনশিয়াল অয়েল লাগান এবং কপাল ও শিরা ম্যাসাজ করুন। ল্যাভেন্ডার বা পেপারমিন্টের মতো প্রয়োজনীয় তেল দিয়ে ম্যাসাজ করলে মাথাব্যথা অনেক কমে যায়।
  • চা-কফি খেতে পারেন। চা বা কফিতে থাকা ক্যাফেইন মাথাব্যথা কমাতে ভালো কাজ করে। আর কালো চায়ের সঙ্গে আদা-লবঙ্গ ও মধু মিশিয়ে খেলে মাথাব্যথা দূর হয়।


আদা


  • আদা মাথার রক্তনালীর প্রদাহ কমাতে সাহায্য করবে। এতে মাথাব্যথা কমে যাবে।
  • সমপরিমাণ আদার রস ও লেবুর রস মিশিয়ে খান। মাথাব্যথা হলে দিনে দুই থেকে তিনবার খেতে পারেন।
  • এক চা চামচ শুকনো আদা গুঁড়ো দুই টেবিল চামচ পানির সাথে মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করুন। কয়েক মিনিটের জন্য কপালে লাগান। এতে ব্যথা কমবে।
  • আদার গুঁড়া বা কাঁচা আদাও ফুটিয়ে নিতে পারেন। এবার এই সেদ্ধ পানিতে ভাপ দিন।
  • ব্যথা উপশমের জন্য দুই টুকরো আদা মিছরিও চিবিয়ে খেতে পারেন।


পুদিনা পাতার রস


  • পুদিনা পাতায় মেন্থল ও ম্যান্থন থাকে। মাথাব্যথা দূর করতে এই উপাদানগুলো খুবই উপকারী।
  • এক মুঠো পুদিনা পাতা নিন। পাতা থেকে রস বের করুন। এই রস কপালে লাগান।
  • পুদিনা চাও খেতে পারেন।


আইস প্যাক


  • বরফ প্রদাহ দূর করতে সাহায্য করবে। পাশাপাশি এটি ব্যথা উপশম করবে।
  • আপনার গলায় বরফের প্যাকটি রাখুন। এতে মাইগ্রেনের ব্যথা অনেকটাই উপশম হবে।
  • এছাড়াও বরফ ঠান্ডা জলে একটি ধোয়া তোয়ালে বা কাপড়ের টুকরো ভিজিয়ে রাখুন। পাঁচ মিনিটের জন্য মাথায় লাগিয়ে রাখুন। আপনি এটি দিনে কয়েকবার করতে পারেন। তবে যাদের ঠান্ডার সমস্যা আছে, তাদের না করাই ভালো।

রেফারেন্সঃ-

ntvbd

jugantor

jagonews24

Post a Comment

Previous Post Next Post